গুচ্ছ বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা আবেদন এবং এডমিট ডাউনলোড

প্রতিবছর উচ্চমাধ্যমিক শেষে দেশের বিশ্ববিদ্যালয় গুলো তাদের আসনের বিপরীতে শিক্ষার্থী উচ্চশিক্ষার জন্য আলাদা আলাদা সার্কুলার দিয়ে থাকে। কিন্তু এবার করোনা মহামারীর কারনে সকল বিশ্ববিদ্যালয় আলাদা করে পরীক্ষা নেওয়াটা ঝুকিপূর্ণ হতে পারে বিবেচনায় এনে বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন সমন্বিত ভাবে ভর্তি পরীক্ষা আয়োজন করার পরিকল্পনা করেছে। এতে করে দেশের ২০ টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় সাধারন এবং বিজ্ঞান প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় গুলো একত্র হয়েছে এই সমন্বিত পরীক্ষার মাধ্যমে শিক্ষার্থী নেওয়ার ক্ষেত্রে। জেনেনিন গুচ্ছ এডমিশনের খুটিনাটি বিষয় সমূহ।

গুচ্ছ বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা কি?

বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন এর সমন্বয়ে দেশের ২০ টি সাধারন এবং প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় একত্রে একই প্রশ্নে একই সময়ে তাদের ভর্তি পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এই পরীক্ষায় প্রায় ৪ লক্ষ উচ্চমাধ্যমিক পাশ করা শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিতে পারবে বিপরীতে রয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় গুলোর প্রায় ৪০ হাজার বিভিন্ন বিষয়ের আসন সংখ্যা। মূলত শিক্ষার্থীদের একাধিক জায়গায় পরীক্ষা দেবার ঝামেলা কমানোর জন্য এবং করোনা মহামারীর কথা বিবেচনায় এনেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।
গুচ্ছ পরীক্ষা বাস্তবায়ন কমিটির মূল পদে রয়েছে জাবির উপাচার্য এবং অন্য কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যগণ। এই গুচ্ছ পরীক্ষার জন্য প্রায় ৬ লক্ষ শিক্ষার্থী আবেদন করতে পারবে। এদের মাঝে থেকে প্রাথমিক বাছাইয়ে প্রায় ৪ লক্ষ আবেদন গ্রহণের মাধ্যমে শুরু হবে এই পরীক্ষার মূল কার্যক্রম। এভাবেই ২০২০-২১ সেশনে উচ্চশিক্ষার জন্য পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হতে যাবে।

গুচ্ছতে পরীক্ষা নিবে যেসকল বিশ্ববিদ্যালয়

দেশের মোট ২০ টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় যাদের মাঝে ৯ টি সাধারণ এবং বাকি ১১ টি হলো বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় এর গুচ্ছের মাধ্যমে তাদের ভর্তি পরীক্ষা নিতে যাচ্ছে। নিচে এদের একটি তালিকা দেওয়া হলোঃ

  1. জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়
  2. শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  3. বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়, রংপুর
  4. পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  5. বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  6. জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়
  7. শেখ হাসিনা বিশ্ববিদ্যালয় (নেত্রকোনা)
  8. রাঙামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  9. বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়
  10. রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়
  11. বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, গোপালগঞ্জ
  12. হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  13. মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  14. ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়
  15. নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  16. কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়
  17. খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়
  18. পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  19. যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  20. বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল বিশ্ববিদ্যালয়

গুচ্ছ বিশ্ববিদ্যালয় আবেদন যোগ্যতা ও সময়সীমা

গুচ্ছ বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তির অফিশিয়াল ওয়েব সাইট gstadmission.ac.bd এ একটি বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে এপ্রিলের ১ তারিখ থেকে তাদের আবেদন গ্রহণ চলছে। যা সরকার প্রদত্ত লকডাউন শেষ হবের পর ১০ দিন অবধি গ্রহন চলবে। সেই সাথে আবেদন হবে ২ ধাপে, প্রথম ধাপ হলো প্রাথমিক বাছাই এবং যারা প্রথম ধাপে যোগ্য হবে তারা পরে ৫০০ টাকা আবেদন ফি দিয়ে মূল আবেদন করতে পারবে।
যারা আবেদনের জন্য যোগ্য বলে বিবেচিতঃ

বিজ্ঞান বিভাগ

এইচএসসি/সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ আবেদনকারীদের এসএসসি/সমমান ও এইচএসসি/সমমান উভয় পরীক্ষায় (৪র্থ বিষয়সহ) ন্যূনতম জিপিএ ৩.৫০ সহ সর্বমােট জিপিএ ৮.০০ থাকতে হবে।

ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগ

এইচএসসি/সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ আবেদনকারীদের এসএসসি/সমমান ও এইচএসসি/সমমান উভয় পরীক্ষায় (৪র্থ বিষয়সহ) ন্যূনতম জিপিএ ৩.৫০ সহ সর্বমােট জিপিএ ৭.৫০ থাকতে হবে।

মানবিক বিভাগ

এইচএসসি/সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ আবেদনকারীদের এসএসসি/সমমান ও এইচএসসি/সমমান উভয় পরীক্ষায় (৪র্থ বিষয়সহ) ন্যূনতম জিপিএ ৩.৫০ সহ সর্বমােট জিপিএ ৭.০০ থাকতে হবে।

গুচ্ছ পরীক্ষার মূল সার্কূলার দেখতে এখানে ক্লিক করুন

গুচ্ছ বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষার এডমিট ডাউনলোড

গুচ্ছের অফিশিয়াল সাইট gstadmission.ac.bd থেকে যেই সার্কুলার প্রকাশ হয়েছিল সেই তথ্য অনুযাযায়ী প্রাথমিক আবেদন শুরু হবার কথা ছিল ১ এপ্রিল ২০২১ যা ১৫ এপ্রিল ২০২১ শেষ হবার কথা ছিল। কিন্তু সরকার দেশে লকডাউন দেওয়ায় এই আবেদনের সময়সীমা বাড়িয়ে লকডাউন শেষ হবার পর আরো ১০ দিন দেওয়া হয়েছে। তাই আগামীতে সকল আপডেট গুচ্ছের ওয়েবসাইটে সময়মতো পাবলিশ করা হবে।
https://gstadmission.ac.bd

এছাড়া আগামীতে পরীক্ষা বিষয়ক সকল আপডেট আমাদের সাইটে পাবলিশ করা হবে।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *